আজ মাঠে গড়াচ্ছে বঙ্গবন্ধু বাংলাদেশ-ওয়েস্ট ইন্ডিজ সিরিজ

0
104

ক্রীড়া ডেস্ক: দীর্ঘ ১০ মাস পর ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে ওয়ানডে ম্যাচ দিয়ে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ফিরছে বাংলাদেশ। আজ বুধবার মাঠে গড়াচ্ছে সিরিজের প্রথম ওয়ানডে। মিরপুর শেরেবাংলা স্টেডিয়ামে সকাল সাড়ে ১১টায় শুরু হবে ম্যাচ।

সিরিজ শুরুর আগে সংবাদমাধ্যমের সঙ্গে কথা বলার সময় বাংলাদেশ দলের নতুন ওয়ানডে অধিনায়ক তামিম ইকবাল জানিয়েছেন, ওয়েস্ট ইন্ডিজ সিরিজে নিজস্ব একটি ব্র্যান্ড তৈরির লক্ষ্যে মাঠে নামবেন তাঁরা।

এ ব্যাপারে ভার্চুয়াল সংবাদ সম্মেলনে তামিম বলেন, ‘আমি সবসময় বাংলাদেশি স্টাইল অব ক্রিকেট, বাংলাদেশি ব্র্যান্ড অব ক্রিকেট গড়ে তোলার দিকে গুরুত্ব দেই। প্রত্যেকটা দেশের নিজস্ব স্টাইল আছে। আমি মনে করি না আমাদের অন্য কাউকে অনুসরণ করা উচিত। আমরা ওয়েস্ট ইন্ডিজ বা অস্ট্রেলিয়ার মতো শক্তিশালী নই, কিন্তু আমাদের এমন অনেক অ্যাডভান্টেজ আছে যা অন্যদের দলে নেই। তাই কাউকে অনুসরণ না করে বাংলাদেশি ব্র্যান্ড অব ক্রিকেট তৈরি করতে চাই।’

বাংলাদেশি ব্র্যান্ড অব ক্রিকেট তৈরির লক্ষ্যে ওয়ানডে দলের ব্যাটিং লাইনআপে কিছুটা পরিবর্তন করতে চলেছে টিম ম্যানেজমেন্ট। লোয়ার অর্ডারে সৌম্য সরকারকে নামানোর সিদ্ধান্তকে সমর্থন করছেন তামিমও এবং সাকিব আল হাসানকে তাঁর তিন নম্বর পছন্দের জায়গা থেকে চার নম্বরে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে।

সৌম্যের নতুন ভূমিকা সম্পর্কে তামিম বলেন, ‘আমরা সৌম্যকে বিসিবি প্রেসিডেন্টস কাপের আগে তার নতুন ভূমিকার কথা জানিয়েছি। আমরা বলেছিলাম তাকে একটি নির্দিষ্ট অবস্থানে ব্যাট করতে হবে, সে অনুযায়ী প্রস্তুতির পরামর্শ দেওয়া—আমরা সবাই এটি অনেক আগেই জানি।’

সাকিবের নতুন চ্যালেঞ্জ নিয়ে বাংলাদেশ অধিনায়ক বলেন, ‘এই বার্তা সাকিবের কাছে খুব স্বাভাবিক। আমি তার সঙ্গে ব্যক্তিগতভাবে কথা বলেছি। সে বলেছে এটি

গ্রহণ করতে তার কোনো সমস্যা নেই। সাকিব এটা বুঝতে পেরেছে। এই সিদ্ধান্ত তাকে পরিস্থিতি বোঝার সুযোগ করে দেবে, কারণ সে দীর্ঘদিন পর ফিরে এসেছে। আমরা সবাই জানি চার নম্বরে সাকিব কতটা ভালো ছিল, এই জায়গা ফিরিয়ে দেওয়ার জন্য তার রেকর্ডই যথেষ্ট। আমরা এটি সম্পর্কে ভালোভাবে অবহিত। সাকিব চার নম্বরে ব্যাট করতে যাওয়া নিয়ে খুশি।’

ইংল্যান্ডের সর্বশেষ ওয়ানডে বিশ্বকাপে সাকিব বাংলাদেশের হয়ে তিনে ব্যাট করেছেন। যেখানে পাঁচটি অর্ধশত এবং দুটি সেঞ্চুরিতে ৬০৬ রান করেছেন। তাঁর সর্বোচ্চ স্কোর ছিল অপরাজিত ১২৪।

আনুষ্ঠানিকভাবে অধিনায়ক হিসাবে তামিম ইকবালের হবে এটি প্রথম ওয়ানডে সিরিজ। এর আগে ২০১৯ বিশ্বকাপের পর শ্রীলঙ্কা সফরে দলকে নেতৃত্ব দিয়েছিলেন তিনি। যদিও তামিম সেই অভিজ্ঞতা ভুলে যেতে চাইবেন, কারণ লঙ্কানদের বিপক্ষে তিন ম্যাচেই বাংলাদেশ হেরেছিল। কয়েক বছর ধরে তামিম ঘরোয়া ক্রিকেটে বিভিন্ন দলের নেতৃত্ব দিচ্ছেন।

এ ব্যাপারে তামিম বলেন, ‘আন্তর্জাতিক পর্যায়ে একই ভূমিকা পালন করার ঠিক আগে আমি দুটি ঘরোয়া টুর্নামেন্টে অধিনায়কত্ব করেছি, যা আমার জন্য খুব সুবিধা হয়েছে। দুর্ভাগ্যজনক যে বিশ্বজুড়ে কোভিড-১৯ এর কারণে আমরা কিছু আন্তর্জাতিক ম্যাচ মিস করেছি। তবে আমি অনেক কিছু শিখেছি। আমি মনে করি সবাই সময়ের সঙ্গে তা বুঝতে পারবে এবং আমিও এর মধ্য দিয়ে যাব। একই সঙ্গে আপনাকে বুঝতে হবে যে আপনি কী পরিস্থিতিতে পড়ছেন। আমি মনে করি আপনাকে মাঝে মধ্যে আলাদা চিন্তা করতে হবে।’

কাল প্রথম ওয়ানডের পর ২২ জানুয়ারি একই ভেন্যুতে দ্বিতীয় ম্যাচে মুখোমুখি হবে বাংলাদেশ ও ওয়েস্ট ইন্ডিজ। তৃতীয় ওয়ানডে এবং প্রথম টেস্ট চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে যথাক্রমে ২৫ জানুয়ারি এবং ৩-৭ ফেব্রুয়ারি হবে। ১১ ফেব্রুয়ারি দুই দলের মধ্যকার শেষ টেস্ট মিরপুরে অনুষ্ঠিত হবে।